মুদাসসর অমরনাথ? মহিন্দর নজর?

উৎপল শুভ্র

২৯ জুলাই ২০২১

মুদাসসর অমরনাথ? মহিন্দর নজর?

রহস্য মনে হচ্ছে? পাকিস্তান আর ভারতের এই দুই ক্রিকেটারের অবিশ্বাস্য সব মিলের কথা শুনলে আপনারও মনে হবে, তাই তো, মুদাসসরের নামের শেষে `অমরনাথ` আর মহিন্দরের নামের শেষ `নজর` তো বসিয়েই দেওয়া যায়!

চাইলেই মুদাসসর নজরকে আপনি মুদাসসর অমরনাথ বলে ডাকতে পারেন। মহিন্দর অমরনাথকে মহিন্দর নজর।

রহস্য মনে হচ্ছে? পাকিস্তান আর ভারতের এই দুই ক্রিকেটারের মধ্যে অবিশ্বাস্য সব মিলের কথা শুনলেই পেয়ে যাবেন এই রহস্যের উত্তর। তখন আপনারও মনে হবে, তাই তো, মুদাসসরের নামের শেষে 'অমরনাথ' আর মহিন্দরের নামের শেষ 'নজর' তো বসিয়েই দেওয়া যায়!

তা মিলগুলো কী কী? নাম্বার দিয়েই লিখি। এর মধ্যে কোনটা মিলটা সবচেয়ে চমকপ্রদ, এরপর কোনটা..তা ঠিক করে ক্রমটা না হয় নিজের মতো করেই সাজিয়ে নেবেন। 

মুদাসসর-মহিন্দরে মিল-১

নাম নিয়ে যেহেতু একটা খেলা খেলেছি, মিলের কথাও নাম দিয়েই শুরু হোক। ইংরেজিতে দুজনের নামটা একটু খেয়াল করুন: MUDASSAR.......MOHINDER.

M দিয়ে শুরু, R দিয়ে শেষ। দুজনের নামেই লেটার ৮টি।

মুদাসসর-মহিন্দরে মিল-২

দুজনেরই একজন বড় ভাই আছেন, একজন ছোট ভাই।

মুদাসসর-মহিন্দরে মিল-৩

দুজনের বাবাই টেস্ট ক্রিকেটার। মিলটা এখানে শেষ হলেও হতো। মুদাসরের বাবা নজর মোহাম্মদ এবং মহিন্দরের বাবা লালা অমরনাথ দুজনই নিজের দেশের পক্ষে টেস্টে প্রথম সেঞ্চুরি করেছেন। সেই দুটি সেঞ্চুরিই আবার পাকিস্তান ও ভারতের দ্বিতীয় টেস্ট ম্যাচে।

বাবা লালা অমরনাথ ও ছেলে মহিন্দর অমরনাথবাবা নজর মোহাম্মদের সঙ্গে মুদাসসর নজর

মুদাসসর-মহিন্দরে মিল-৪

পাকিস্তানের পক্ষে টেস্টে ১০১তম সেঞ্চুরিটা করেছেন মুদাসসর নজর। ভারতের পক্ষে ১০১তম সেঞ্চুরি মহিন্দর অমরনাথের।

মুদাসসর-মহিন্দরে মিল-৫

দুজনেরই টেস্ট অভিষেক ২৪ ডিসেম্বর। মহিন্দর অমরনাথের টেস্ট অভিষেক হয়েছিল ১৯৬৯ সালের ২৪ ডিসেম্বর। মুদাসসর নজরের টেস্ট অভিষেক এর সাত বছর পর আরেক ২৪ ডিসেম্বরেই। অভিষেক টেস্টে দুজনেরই প্রতিপক্ষ ছিল অস্ট্রেলিয়া।

মুদাসসর-মহিন্দরে মিল-৬

দুজনই টেস্টে দুই হাজার পূর্ণ করেন একই টেস্ট ম্যাচে। ১৯৮২ সালে করাচিতে।

মুদাসসর-মহিন্দরে মিল-৭

ভারতের বিপক্ষে কোনো পাকিস্তানি ব্যাটসম্যানের এক সিরিজে সর্বোচ্চ রানের (৭৬১) মুদাসসরের। পাকিস্তানের বিপক্ষে ভারতের কোনো ব্যাটসম্যানের এক সিরিজে সর্বোচ্চ রান মহিন্দর অমরনাথের (৫৮৩)। মুদাসসরের রেকর্ড ভারত সফরে। মহিন্দরের পাকিস্তান সফরে। দুটিই ১৯৮২-৮৩ মৌসুমে, দুই দেশের মধ্যে পরপর দুই সিরিজে।

মুদাসসর-মহিন্দরে মিল-৮

টেস্টে দুজনের প্রথম সেঞ্চুরি একই সপ্তাহে। ১৯৭৭ সালের ১৫ ডিসেম্বর লাহোরে মুদাসসর সেঞ্চুরি করার পাঁচ দিন পর পার্থে প্রথম টেস্ট সেঞ্চুরি পান মহিন্দর।

মুদাসসর-মহিন্দরে মিল-৯

দুজনই ডানহাতি ব্যাটসম্যান এবং ডানহাতি মিডিয়াম পেসার। বোলার হিসেবে দুজনই ছিলেন আন্ডাররেটেড।

এবং ১০

মুদাসসর নজরের মতো মহিন্দর অমরনাথও বাংলাদেশ ক্রিকেট দলকে কোচিং করিয়েছেন।

শেয়ার করুনঃ
আপনার মন্তব্য
আরও পড়ুন
×